Breaking News
Home / Videos / কাগজের তৈরি বক দিয়ে দারুন কায়দায় আটা লাগিয়ে পাতা হয় ফাদ, উড়ে এসে বসতেই আটকা পড়ে যায় আটায়, নেটদুনিয়ায় তুমুল ভাইরাল।

কাগজের তৈরি বক দিয়ে দারুন কায়দায় আটা লাগিয়ে পাতা হয় ফাদ, উড়ে এসে বসতেই আটকা পড়ে যায় আটায়, নেটদুনিয়ায় তুমুল ভাইরাল।

নিজস্ব প্রতিবেদন: মানবসভ্যতার পূর্ব যুগ থেকে মানুষ ক্ষুধা নিবারণের জন্য বিভিন্নভাবে বিভিন্ন প্রাণী শিকার করে আসছে। প্রাণীদের মধ্যে পাখি অন্যতম। মানুষ ক্ষুধা নিবারণের জন্য পাখি ধরে বিভিন্ন ফাদ তৈরি করে। শিকারি পাখি গুলোর মধ্যে বক অন্যতম পাখি। আমাদের দেশের খাল বিল,নদ-নদী ও হাওর বাওর গুলোর আশেপাশে বক দেখা যায় ।সাধারণত বিভিন্ন পোকামাকড় খেয়ে জীবন ধারণ করে। তবে সকল ধরণের পাখি শিকার করে না।

যে সমস্ত কাজগুলোকে শিকার করা হয় সেগুলো কে শিকার যোগ্য কাকে বলা হয়। যে সমস্ত বুনো পাখি খাদ্যের জন্য শিকার করা হয় বা শিকারের যোগ্য, তাদের শিকারযোগ্য পাখি বা গেম বার্ড বলে। বুনো এই অর্থে যে এরা গৃহপালিত নয়। এদের গেম বার্ড বলা হয় কারণ এদের শিকার করাটা অনেকসময় একধরনের বিনোদন হিসেবে গণ্য করা হয়। পৃথিবীর বিভিন্ন অঞ্চলে খাদ্য এবং বিনোদনের উদ্দেশ্যে পাখি শিকার করা হয়।

অঞ্চল ভেদে কোন ধরনের পাখি শিকার করা যায় আর কোন ধরনের পাখি শিকার করা যায় না তা নির্ভর করে ঐ অঞ্চলে পাখির প্রাপ্যতা, বৈচিত্র্য, আঞ্চলিক স্বাদ, আবহাওয়া এবং শিকার আইনের ওপর। আবার বিভিন্ন ধর্মের উপর ভিত্তি করে বিভিন্ন পাখি হাওয়ার উপর ধর্মীয় আইন রয়েছে। এছাড়াও বিভিন্ন দেশের আইন বিভিন্ন পাখি শিকার এর উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা থাকে।

যে সকল বাকিগুলো প্রায় বিলুপ্ত কিংবা বিলুপ্তের পথে ওই পাখি গুলো ধরা বিভিন্ন দেশে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়ে থাকে। এছাড়াও পাখি আমাদের প্রাকৃতিক ভারসাম্য রক্ষা করে তাই এদের ধরার উপর বিভিন্ন নিষেধাজ্ঞা জারি করা থাকে। পাখি শিকার করার কৌশল নানা রকমের। জাল পেতে, ফাঁদ পেতে শিকার ধরা হয়। আবার বাজ, ঈগল ইত্যাদি শিকারী পাখি ব্যবহার করে শিকারযোগ্য পাখি জড়ো করে ব্যস্ত রাখা হয়। তারপর গুলি করে শিকার করা হয়।

আলোর ফাঁদ, চলার পথে তার বেঁধে রেখে, নিক্ষেপণযোগ্য অস্ত্র নিক্ষেপ করেও শিকার ধরা যায়। এর মধ্যে দেশীয় কিছু ফাদ রয়েছে যা দিয়ে আমরা গ্রামে যারা বড় হয়েছি তারা ছোটবেলায় বিভিন্ন পাখি শিকার করেছে। বর্তমানে ইউটিউব কিংবা বিভিন্ন যোগাযোগ মাধ্যমে এ ধরনের বিভিন্ন শিকারের ভিডিও প্রচুর পরিমাণে ভাইরাল হয়ে থাকে। ঠিক তেমনি আজকের ভিডিওটিতে যে পদ্ধতিতে বক শিকার করা হয়েছে তা প্রচুর পরিমাণে ভাইরাল হয়।

এ পদ্ধতিতে খুব সহজেই কম পরিশ্রমে এবং কম সময়ে অনেকগুলো পাখি ধরা সম্ভব। ভিডিওটিতে কিভাবে বক গুলো ধরেছে তা দেখতে নিচের ভিডিওটি দেখতে পারেন। আজকের ভিডিওটিতে একটি ছেলে ধানক্ষেত থেকে বক ধরার চিত্র ধারণ করেছে। এখানে ছেলেটি কয়েকটি কাগজের তৈরি বক বানিয়েছে যেগুলো দেখতে একদম হুবহু বকের মতো। তারা এগুলো ব্যবহার করেছে বন্য বক গুলোকে আকর্ষণ করার জন্য।

এবং এই নকল বক গুলোর পাশে ফদ পেতে রেখেছিলো। তারা ভিন্ন পদ্ধতির ফাদ ব্যবহার করেছে বক গুলোকে ধরার জন্য । তারা বিভিন্ন বাশের কাঠির মধ্যে আঠালো জাতীয় পদার্থ লাগিয়ে রেখেছে।বক গুলো যখন এই ফাঁদের কাছাকাছি আসে তখন আঠালো পদার্থ গুলো তাদের পালকের মধ্যে এমন ভাবে লেগে যায় যে তারা আর উড়তে পারে না। তারপর তারা দৌড় গিয়ে বক গুলোকে ধরে ফেলে। এই অভিনব কৌশল সম্পর্কে জানতে ভিডিওটি দেখতে পারেন।

বিস্তারিত ভিডিওতে দেখুনঃ

About Admin

Check Also

প্রথম ইনকামের টাকা দিয়ে বাইক কিনে প্রথমেই বাবাকে শিখাল, তুমুল ভাইরাল ভিডিও!

ছেলে জীবনের প্রথম ইনকামের টাকা দিয়ে বাইক কিনে সবার প্রথমে বাবাকেই শিখাল বাইক চালানো, ভাইরাল ...

Leave a Reply

Your email address will not be published.